আনুষ্ঠানিক রেসিপিদুপুরের খাবারবিয়ে বাড়ি রেসিপিবৈশাখী রান্নামাছমেনুরাতের খাবার

কলাপাতায় ইলিশ / ভাপা ইলিশ / ইলিশ পাতুরি বা ভাতুড়ি

ইলিশ এমন একটা মাছ যা শুধু নুন মরিচ দিয়ে সেদ্ধ করে খেলেও যেন অমৃত। তবে আমাদের বাঙালিদের তো রসনাবিলাসের অভাব নেই। কত ভাবেই না আমরা এই মাছের রাজার অপূর্ব স্বাদটা উপভোগ করি। আজ আপনাদের জন্য থাকলো বৈশাখ স্পেশাল ইলিশ দিয়ে পুরোনো দিনের এক মজার খাবারের রেসিপি।

উপকরণ :


  • ইলিশ মাছের টুকরা – ৪ টি
  • নারকেল বাটা – ১ টেবিল চামচ (ঐচ্ছিক )
  • সাদা সরিষা বাটা – ২ টেবিলচামচ
  • কাঁচামরিচ বাটা – ৩/৪ টি
  • হলুদ গুঁড়া – ১ চাচামচ
  • পেঁয়াজকুচি – মাঝারি সাইজের ২ টি
  • সরিষার তেল – ২ টেবিল চামচ
  • গোটা কাঁচামরিচ – ৪/৫ টি
  • লবন পরিমান মতো
  • এবং মোড়ানোর জন্য কলা পাতা

প্রণালী :



১। প্রথমে ইলিশ টুকরোগুলো ভাল করে ধুয়ে তারপর সব উপাদানগুলো, সঠিক পরিমাণে মিশিয়ে একটি আধা গাঢ় পেস্ট তৈরি করুন। আপনি চাইলে নারকেল বাটা বাদ দিতে পারেন।
এবার মাছের টুকরোগুলোয় চারিদিকে ভাল করে এই মিশ্রণ মাখিয়ে নিন। মেরিনেট করে রাখুন ২০ মিনিট।

২। এবার মশলা মাখানো মাছগুলো কয়েকটা গোটা কঁচামরিচ সহ কলাপাতায় মুড়ে, সুতা দিয়ে বেঁধে নিন। আপনি চাইলে আলাদা আলাদা করে প্রতিটি মাছ কলাপাতায় বেঁধে নিতে পারেন বা সবগুলো একসাথে করেও নিতে পারেন। আর হ্যাঁ , কলাপাতার বদলে লাউ বা কুমড়ো পাতায় বেঁধেও করতে পারেন এতে লাভ হলো সেই পাতা গুলো ভর্তা করে খেতে পারবেন। :D

৩। এখন এটাকে ভাপানোর পালা। ..এটা কয়েকভাবে করা যায়……

প্রথম পদ্ধতি…..একটা পাত্রে ২-৩ কাপ পানি দিয়ে ফোটান। উপরে একটা ছিদ্রযুক্ত পাত্র রেখে তার উপর কলাপাতায় মোড়া মাছগুলো বিছিয়ে ঢাকনা দিয়ে ৮-১০ মিনিট রান্না হতে দিন! হয়ে গেলে নামিয়ে নিন।

দ্বিতীয় পদ্ধতি…...এটা আপনি মাইক্রোওয়েভেও রান্না করতে পারেন। সেক্ষেত্রে, ১৮০-২০০ ডিগ্রী সেন্টিগ্রেড এ ১৫ মিনিটের জন্য রান্না করুন।

তৃতীয় পদ্ধতি…..রাইস কুকারে করলে, যখন ভাতের পানি টেনে আসবে তখন রাইসকুকারে সবজি সেদ্ধর জন্য যে জালি দেয়া হয় তার উপর পাতায় মোড়ানো মাছগুলো রেখে রাইসকুকারের ঢাকনা বন্ধকরে ওয়ার্ম অপশন দিয়ে রেখে দিন মিনিট ১০।

চতুর্থ পদ্ধতি …. সাধারণ ভাতের হাড়িতেও একইভাবে করতে পারেন। ভাতের পানি টেনে আসলে কলাপাতা বা কুমড়ো পাতায় মোড়ানো মাছগুলো ভাতের উপর বিছিয়ে দিয়ে ঢেকে রেখে দিন মিনিট ১০-১২। এই সময় ইলিশের সুন্দর গন্ধ বের হয়ে আসবে। ঢাকনা খুলে পরিবেশন করুন ।

পঞ্চম পদ্ধতি…. কলাপাতা বা লাউপাতা কোনোটাই যদি না পান তাহলে মেখেরাখা মাছগুলো একটা স্টিলের টিফিন বাতি বা সাধারণ বাটিতে ভরে ঢাকনা দিয়ে দিন। একটা পাত্রে ২ কাপ পানি দিয়ে তারওপর বাটিতে বসিয়ে উপরে ভারী কিছু দিয়ে চাপা দিন। তারপর নিম্ন মাঝারি আঁচে পাত্রটি চুলার উপর বসিয়ে রান্না করুন ১০ থেকে ১২ মিনিট।

হয়ে গেলে বের করে বাসমতি বা যে কোনো চালের ভাতের সাথে গরম গরম পরিবেশন করুন। সাথে নিতে পারেন এক টুকরো লেবু……আঃ মজাই মজা

Tags

Related Articles

Leave a Reply

Back to top button
Close